বাবা

ফিরোজ শ্রাবন​ Baba

ছেলে আমার মস্ত মানুষ, মস্ত অফিসার, নচিকেতার এই গান শুনে যারা হতাশ তারা হচ্ছেন বাবা। আবার ছেলে যখন চট্টগ্রামে পাহাড় ধ্বসে উদ্ধার কাজে গিয়ে জীবন বিলিয়ে দিলেন সেই ক্যাপ্টেন তানভীর আলম শান্ত’র বাবা যখন বলেন, ‘তোমার মৃত্যুতে আমি বাবা হিসেবে গর্বিত তুমি দেশের জন্য জীবন বিলিয়ে দিয়েছ,’ তিনি ও কিন্তু বাবা। বাবারা’ই হয়ত পারে এমন কঠিন মুহূর্তে নিজেকে সামাল দিতে। পৃথিবীর কোন যন্ত্র কি পারবে ক্যাপ্টেন তানভীর এর বাবর কষ্টের মাত্রাটা নির্ণয় করতে? কিন্তু কি অটল তিনি। সন্তান হারানোর বেদনা তাকে নড়াতে পারলো না । হয়ত গর্ভধারিনী মা হাউমাউ করে কাঁদছেন কিন্তু বাবা ? বাবারা এমনই, শত ঢেউ এসে আছড়ে পড়লেও শান্ত অবিচল থাকেন শত কান্না বুকে চেঁপে রেখে । বাবা’র ভালবাসা সন্তানরা হয়ত উপলদ্ধি করতে পারেনা, কারণ তাদের ভালবাসা নীরব। তবে যদি আমাদের দিলদার আহমেদ এর মত বাবা হন (আপন জুয়েলার্স এর মালিক) তাহলে ভিন্ন কথা। আমি ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি তার উদাহরণটা টানার জন্য। কারণ এমন বাবা আমাদের কোন সন্তানেরই কাম্য নয়। মহান সৃষ্টিকর্তা পৃথিবীতে আমাদের যতগুলো নেয়মাত দান করেছেন বাবা- মা হচ্ছেন সবচেয়ে শ্রেষ্ঠ, পৃথিবীর সবচেয়ে ভরসার নাম । বাবা যখন সন্তানদের বোঝাতে ব্যর্থ হন যে, বাবা কে বা কি, তখন তিনি তার সন্তান যতদিন না বাবা  হচ্ছেন ততদিন অপেক্ষা করা ছাড়া আর উপায় খুজেঁ পান না।

আজ বাবা দিবস । এই বাবা দিবসে একটু বেশী হয়ত বাবাকে প্রয়োজন হবে। কারণ আর মাত্র কয়েকদিন পরে ঈদ। সুতারাং বাবা ছাড়া ঈদ ভাবাই যায়না। বাবা টাকা দিলেই তো শপিংয়ের প্লান শুরু, না হলে প্লান করেও লাভ নেই। আজকে যাদের বাবা জীবিত নেই তাদের অনেক অভিমান বুকের মধ্যে, বাবা কেন থাকবেনা, সব বাবারা বাবা দিবসে ছেলে মেয়েদের জন্য কতকিছু করছে আর আমার বাবা আমাদের ছেড়ে চলে গেছে।বাবার কি দয়ামায়া নাই, নাকি তিনি আমাদেরকে ভালবাসেন না? অথবা ইস বাবা যদি আজকে বেঁচে থাকতো আমিই বাবাকে নতুন পাঞ্জাবি কিনে দিতাম। বাবাকে নিয়ে ঘুরতে যেতাম।বলতাম, বাবা আপনার যখন যা কিছু লাগবে আমাকে বলবেন কেমন? আমি এখন বড় হয়েছি না, টাকা রোজগার করি, এখন থেকে আমিই আপনার বাবা। আবার কেউ কেউ হয়ত বলতো, বাবা তুমি যদি ফিরে আসো তাহলে সত্যিই তোমার কাছে আর কোন দিন বায়না করবো না । তোমাকে আর জ্বালাবো না। তুমি ফিরে এসো বাবা। অন্যদিকে আবার কারো বাবা হয়ত তার নিজ স্ত্রী সন্তানকে রেখে অন্য কোথাও ঘর বেঁধে বাবা দিবস পালন করছে । সেই সন্তানের কষ্ট যেন কিছুতেই বাঁধ মানছে না। তার বুকের মাঝে আগুন যেন দাউ দাউ করে জ্বলছে । বাবা নামটা তার কাছে যেন প্রিয় শত্রু । এমন সব প্রশ্নের উত্তর, ‘তুমিও বাবা হও।’

হ্যাঁ আমাকে বাবা হতে হবে। সেই বাবা যেমন তানভীর এর বাবা। অবশ্যই সাফাত আহমেদ এর বাবা (দিলদার) এর মত নয়। বাবা নামটা কতটা সন্মানের বা অপমানের তার হাজারো লাখো উপমা হয়ে আছেন আমাদের বাবারা । আমাদের প্রিয় গীতিকার জুলফিকার রাসেল বাবার স্নেহ না পেয়ে বড় হয়েছেন, বাবা খোঁজ নেননি।আজ তার বাবা হবার জন্য সেই বাবা নামের ব্যক্তিটি আফসোস করবেন নিঃসন্দেহে। আর যদি বিবেক থাকে তো, বিবেক এর দংশন ক্ষতবিক্ষত করবে তাকে কেন এমন সোনার টুকরা ছেলে তিনি দূরে সরিয়ে রেখেছিলেন। আরেক গীতিকার রবিউল ইসলাম জীবন শৈশবেই বাবাকে হারিয়েছেন। কিন্তু পথ হারাননি। সারা বাংলাদেশ জানে তার জনপ্রিয়তার খবর। কত সন্মানিত আজ তিনি । আজকে যদি তিনি বাবাকে পেতেন ! বাবার জন্য হয়ত তিনি নিজেই বাবার শ্রেষ্ঠ উপহার হতে পারতেন। এমন সন্তানকে বুকে জড়িয়ে ধরে কেউ যদি বলে, তুমি আমার সন্তান। এর চেয়ে গর্বের আর কি হতে পারে। জনপ্রিয় অভিনেতা মোশাররফ করিম বাবাকে অনেক ভালবাসতেন, আজ বাবা বেঁচে নেই। এক অনুষ্ঠানে বাবাকে তিনি স্মরণ করে বললেন, বাবাকে যদি ফিরে পেতাম তো বাবাকে ছুটি দিয়ে দিতাম। বলতাম, ‘এই নাও তোমার গাড়ির চাবি আর টাকা । আজ থেকে তোমার যা কিছু লাগবে সব কিছু আমি দেব।’ এমন সন্তানের বাবা যিনি তার মত গর্বিত বাবা কেউ কি আছেন ! এর পেছনের গল্প হয়তো আমরা জানিনা, শুধু সাফল্যের গল্পই বলতে পারবো। শুধু এতটুকুই বলবো, বাবাকে আমরা যেন কোন অবস্থায়ই অবহেলা না করি বা ভুল না বুঝি । এক সন্তান দীর্ঘ দিন বিদেশ থেকে দেশে আসলো তো বাবা তাকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানালে সন্তান অবাক হয়ে যায় যে, বাবা তুমি আমার জন্মদিন জানে। শত অভাব অনটন এর মধ্যে থেকেও যে বাবারা সন্তানের মুখে অন্য তুলে দিচ্ছেন নিজে অভুক্ত থেকে তাদের কে জানাই বাবা দিবসের শুভেচ্ছা। সশ্রদ্ধ  সালাম জানাই তাকে যিনি সদ্য তার সন্তান ক্যাপ্টেন তানভীরকে হারিয়েছেন চট্টগ্রামে পহাড় ধ্বসের ঘটনায়। আল্লাহর কাছে মিনতি, ইয়া আল্লাহ আপনি ক্যাপ্টেনকে জন্নাতুল ফেরদৌস নসিব করেন। আমিন।

 

ফিরোজ শ্রাবন​
ফিরোজ শ্রাবন​

Comments

comments

Powered by Facebook Comments

Related posts