১৯৭১ ফিরে দেখা ২০১৭-৩

২৫ মার্চ, ১৯৭১ । বিকেলের ট্রেনিং শেষে কেন যেন মনে হলো যুদ্ধ শুরু হয়ে গেছে। গত কয়েক দিন অবন্তীকা নিউক্লিয়াস থেকে বাহার ভাই বাসায় ফেরেনি। হয়তো শহরে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছে । সবাইকে বললাম, আগামীকাল খুব ভোরে ট্রেনিং শুরু হবে লেট করা যাবে না ইতোমধ্যে নতুন যা ঘটেছিলো, আমার বড় ভাইয়ের ছেলে টুটুলের অংশগ্রহণ । অর্থাৎ আমাদের পরিবারের তিনজন তখন মুক্তিযোদ্ধা, বাহার ভাই, আমি ও টুটুল আমারা দু’জন সন্ধ্যায় একসঙ্গে ফ্লাটে ফিরলাম অদ্ভুতভাবে সেই রাতে আমারা যাকে ‘মিঞা ভাই’ বলে সম্বোধন করি তাঁর   স্বৈর শাসন ও ভাবির  সেই জটিল ব্যবস্থাপনার খড়গ কোনটাই ছিলো না আমার মা অবাক বিস্ময়ে তৃপ্ত আনন্দে চাচা ভাতিজার ঘনিষ্ঠ তৎপরতা লক্ষ্য করছিলেন তিনি কি জানতেন তার নিজের রক্তের দুটি প্রজন্ম ভোর বেলায় যুদ্ধক্ষেত্রে যাবে !

সে রাতে মুলত ঘুম হলো না, ভোর হবার আগেই চুপিচুপি দরজা খুলে বাইরে যাবার জন্য বুকটা ছটফট করছিলো দেখি টুটুলও প্রস্তুত ! কলোনির অন্ধকারাচ্ছন্ন মাঠে আমি আর টুটুল কোন কথাবার্তা ছাড়া দাঁড়িয়ে আছি। একে একে সব যোদ্ধারা হাজির বিশ্বাসই হচ্ছিলো না এই অভূতপূর্ব অংশগ্রহণ । আমি ও টুটুল সেই সাক্ষী ! আমরা সারিবদ্ধভাবে ক্যানালের দিকে এগিয়ে গেলাম ক্যানালের ধার দিয়ে হেরিংবন রাস্তায় পূর্ব-পশ্চিম মুখি প্যারেড শুরু হলো আসন্ন ভোরের আগে ইতোপূর্বে এই শিশু-কিশোরদের একসঙ্গে এমন মিলন ঘটেনি । অনেকদিন স্কুল বন্ধ,  স্কুলের পবিত্রতা নেমে এসেছে সকলের মাথায় ।

এ মাসের ৭ তারিখ থেকে পলাশীর আম্রকাননে ডুবে যাওয়া সূর্য আবার উদিত হয়েছে । তবে মোঘল সাম্রাজ্যের অধীনে নয় , স্বাধীন বাংলার প্রথম বাঙালি রাজা শেখ মুজিব হাজার বছর ধরে নিপীড়িত জনগণকে সাথে নিয়ে রাজ্য জয় করেছেন ।

সুজলা সুফলা সবুজ শস্য ক্ষেতে এক রক্তাক্ত লাল সূর্য । নতুন রাজার কথায় চলছে দেশ । প্রজাগণ ঠিক ঠিক তা পালন করে চলেছে তাঁর নির্দেশে

কিন্তু পরাজিত ও অবরুদ্ধ শত্রুবাহিনী আবার আক্রমণ করতে পারে তাই চলছে যুদ্ধের প্রস্তুতি । আমার শিশু কিশোর মুক্তিযোদ্ধারা এখন প্রতিদিন ২ বেলা ট্রেনিং নিচ্ছে । স্কুল বন্ধ । মা বাবারা তাদেরকে উৎসাহ দিচ্ছেন । দলে নতুন রিক্রুট হয়ে ব্রিগেডটা বড় হয়ে গেছে । অস্ত্র সঙ্কট দেখা দিয়েছে । আগে শুধু ছেলেরা এই ট্রেনিং নিচ্ছিলো । এখন চম্পা, শান্তাসহ অনেক মেয়ে অংশ নিচ্ছে । কলোনির বেলকোনিগুলোতে মা’য়েরা দাঁড়িয়ে থেকে উৎসাহ দিচ্ছেন । তাদের দিকে তাকালে মনে হয় তারাও এসে যোগ দিতে চাননিজেকে বেশ বাহাদুর মনে হচ্ছিলো । মানসিক শক্তি আগের থেকে অনেক বেড়ে গেছে এই কয়েক দিনে । প্রতিনিয়ত মনে হচ্ছে এক ভয়ঙ্কর যুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি । যে যুদ্ধ বলিভিয়ায় হয়েছে ল্যাটিন আমেরিকায়, ভিয়েতনামে, মাও সে তুং এর দেশ চীনে এখন হচ্ছে গাঙ্গেয় ব-দ্বীপে হিমালয়ের পাদদেশে গাঙ্গেও উপত্যকায় বঙ্গবন্ধু উপাধী ধারণ করে টুঙ্গিপাড়ার মধুমতি ভূমিপুত্র শান্তিবাদী যোদ্ধা পতাকা তুলে ধরেছেন স্বাধীন রাজা হয়ে ! আরাকানী নাফ নদী আর বঙ্গোপসাগর অবধি সেই স্বাধীন রাজ্যের বিস্তৃত পটভূমিতে জেগে উঠেছে কৈবর্ত কবি পপীপের রণবাদ্য, নজরুল-সুকান্ত-বাঘা যোতিনের গর্জনে, লালন-রবিন্দ্রের গড়াই সভ্যতায়

 

 

 

 

 

সোহেল অমিতাভ

Author: সোহেল অমিতাভ

Comments

comments

Powered by Facebook Comments

Related posts

মতামত দিন Leave a comment