একটি পাখি ও বঙ্গবন্ধু

একটি পাখি ও বঙ্গবন্ধু

আমার ছিলো একটি দোয়েল পাখি- মধুর সুরে সকাল বিকেল করতো ডাকাডাকি। আমার আছে- লাল সবুজের নিশান রক্ত দিয়ে এনেছিল তাঁতী মজুর কৃষাণ। বাংলাদেশের বজ্র কন্ঠি যে স্বর সজীব এক নামেতে চিনে তাকে বঙ্গবন্ধু মুজিব। রাজাকার আর মির্জাফরও কুচক্রীদের হাতে জাতির পিতা হত্যা করে ওরা কালো রাতে। খুনীর বিচার আজ হয়েছে ওদের গলায় ফাঁসী কোটি কোটি বাঙালিদের সবার মুখে হাসি।  

Read More

হুমায়ূন আহমেদ স্যারের কিছু প্রিয় উক্তি

হুমায়ূন আহমেদ স্যার

১. পাখি উড়ে গেলেও পলক ফেলে যায় আর মানুষ চলে গেলে ফেলে রেখে যায় স্মৃতি । ২. ঈশ্বর যদি কাউকে মারতে চান তাহলে কি তার কোন আয়োজন করার প্রয়োজন আছে ? তাহলে মরতে কিসের ভয় , একবারই তো মরতে হবে । ৩. ভালবাসাবাসির ব্যাপারটা হাততালির মতো। দুটা হাত লাগে। এক হাতে তালি বাজে না। অর্থাৎ একজনের ভালবাসায় হয় না……   ৪.হারিয়ে যাওয়া মানুষ ফিরে আসলে সে আর আগের মত থাকে না….. কেমন জানি অচেনা অজানা হয়ে যায় । সবই হয়তো ঠিক থাকে কিন্তু কি যেন নাই…… কি যেন নাই……  …

Read More

লুকোচুরি

শ্যামলতা

“সেদিনও দেখলাম লিচুতলায় দাঁড়িয়ে কয়েকজন ছাত্রকে জ্ঞান দিচ্ছেন। আচ্ছা, দেশটা কি আপনার একার? এত চিন্তা কেন আপনার দেশের জন্য? নিজের জন্য একটু ভাবলেও তো পারেন। যবে থেকে দেখছি সেই দুটো ফতুয়া, মোটা ফ্রেমের সেই আতেল মার্কা চশমা আর জুতোজোড়া যে ক’বছর হয়েছে কে জানে। নিজের টিউশনির টাকা খরচ করে লিফলেট বানিয়ে মানুষের কাছে বিলি করে আপনি দেশের কি উপকারটা করছেন, শুনি? অফহোয়াইট কালারের প্যান্টটা আর পরবেন না। গোড়ালির কাছে অনেকটা ছিঁড়ে গেছে। তা দেখে আমার চোখে অশ্রু জমা হহলেই বা আপনার কি এসে যায়।” “শ্যামলতা “ একটা ফুলেরতোড়া, একটা ফতুয়া…

Read More

আমার আমি..৩

আমার আমি ফিরোজ শ্রাবন

আমার মায়ের ছিল ভীষণ পান খাওয়ার নেশা । আর আমার ছিল মায়ের পান চিবিয়ে মিহিন করা সেই অংশের । মা যেমন মাছের মাথার বাকি অংশ আবার আমিও মায়ের পানের বাকি অংশ নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়তাম।  তবে মা আমার মত এত ব্যস্ত হতো না যেমনটা আমি হতাম । ভাত খেয়ে পান না পেলে মা নিজের জীবনকে অর্থহীন মনে করতো । আর একটা শখ মায়ের ছিল ঈদের কাপড় নিজের পছন্দের মত করে নেবার। আব্বা বাজার থেকে তিনটা চারটা কাপড় নিয়ে আসত । মা পছন্দ মত বাছাই করে যেটা বা যে দুইটা পছন্দ…

Read More