শ্বেতকাঞ্চন

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস জগৎ/রাজ্য: Plantae বিভাগ: Magnoliophyta শ্রেণী: Magnoliopsida বর্গ: Fabales পরিবার: Fabaceae উপপরিবার: Caesalpinioideae গোত্র: Cercideae গণ: Bauhinia প্রজাতি: B. acuminata দ্বিপদ নামঃ Bauhinia acuminata বাংলায় সাদাকাঞ্চন নামে পরিচিত ফুলটির অন্যান্য নামের মধ্যে রয়েছে Dwarf White orchid tree, Dwarf white bauhinia, Safed Kachnar, Chingthrao angouba, Vellai mandaarai, Sivamalli উল্লেখযোগ্য। শোভাবর্ধনকারী এই উদ্ভিদের বসতি ম ধ্যভারত, শ্রীলংকা, মালয় ওচিন। বাংলায়। দেখতে সুদৃশ্য হওয়ায় আমরা এদেরকে শুধু বাগানের শোভাবর্ধনে চাষ করে থাকি। এটি Caesalpinaceae (Gulmohar family) পরিবারের অন্তর্গত একটি উদ্ভিদ। এটি ২–৩ মিটার উঁচু প ত্রমোচি গাছ, পাতার দৈর্ঘ্য ১০–১৫ সেমি ও প্রস্থ ৭–১২…

Read More

মাত্র ১১ দিনে সারবে ডায়াবিটিস

ডায়াবেটিস সম্পূর্ণ নির্মূল করা যায়, কথাটি শুনলে যে কারোই ভড়কে যাবার কথা, কারণ ডায়াবেটিস একবার দেহে বাসা বাধলে তা কখনোই পরিপূর্ণ ভাবে সারে না। তবে পরিমিত পরিমান খাবার গ্রহন করে তা নিয়ন্ত্রনে রেখে দীর্ঘদিন সুস্হ থাকা সম্ভব। কিন্তু বৃটেনের বিজ্ঞানী রিচার্ড ডটির দাবী মাত্র ১১ দিনের মধ্যেই ডায়াবেটিস থেকে সম্পূর্ণ মুক্তি পাওয়া সম্ভব। বৃটেনের রিচার্ড ডটি (৫৯) নামের এক ব্যক্তি বেশ অল্প ক্যালোরিসম্পন্ন খাবার খেয়ে ১১ দিনেই ডায়াবেটিস থেকে মুক্তি পেয়েছেন। তিনি কি খাবার খেয়ে এটা করতে পেরেছেন তার একটি চার্ট প্রকাশ করেছেন। যা যা খেতেন, তার তালিকা একেবারেই ছোট। ডায়াবেটিস…

Read More

স্ত্রীর কাছে লেখা তলস্তয়ের শেষ চিঠি

২৩ সেপ্টেম্বর ১৮৬২ সালে নিজের পছন্দে ৩৪ বছর বয়সী কাউন্ট লেভ নিকলায়েভিচ তলস্তয় ১৮ বছর বয়সী মোক্ষিয়া বের্সকে বিয়ে করেন। ভালই ছিলেন তাঁরা। কিন্তু এক সময়ে সম্পর্ক এমন তিক্ততার পর্যায়ে পৌঁছে যে, স্ত্রীর কাছে শেষ চিঠি লিখে ৮২ বছর বয়সে তলস্তয় রাতের অন্ধকারে চিরদিনের মতো বাড়ি ছেড়ে চলে যান। সাথে ছিলেন তাঁর কন্যা। এ ঘটনার ঠিক ১০ দিন পর বাড়ি থেকে বহুদূরের একটি অখ্যাত রেলস্টেশনে তাঁর মৃত্যু হয়। তলস্তয়ের এই অনভিপ্রেত মৃত্যু আর শেষ পরিণতি আজও সারা পৃথিবীর পাঠককুল বেদনার সাথে স্মরণ করে। এটাই সেই শেষ চিঠি। এ চিঠিতে তিনি…

Read More

রবি ঠাকুরের বিয়ের চিঠি ( আমন্ত্রণপত্র)

চিঠি শব্দটা শোনামাত্র আজও চনমনিয়ে ওঠে মন। একটা চরকোনা অথবা লম্বা খাম, তার ওপরে হাতে লেখা কয়েকটা লাইন, পোস্টাফিসের ছাপ কত না প্রিয় ছিল একসময়। এখনও আছে আমাদের মতো পুরোনো দিনের মানুষের কাছে। লাল রংয়ের ডাকঘর , পোস্টমাস্টার, তার সাইকেলের টুংটাং কতই না প্রত্যাশিত ছিল তখন। এখন সে দিন হয়েছে বাসি। চিঠির জায়গা নিয়েছে ইনবক্স, চির​কুট এখন এসএমএস। ভাইভার ইনষ্টাগ্রাম টুইটার আরো কতো কি! হারিয়ে গেছে আবেগ। যখন আবেগ ছিল সেই সময়ের চিঠি রবি ঠাকুরের বিয়ের চিঠি ( আমন্ত্রণপত্র) প্রিয় বাজু.. আগামী রবিবার ২৪ অগ্রহায়ণ তারিখে শুভদিনে শুভলগ্নে আমার পরমাত্মীয়…

Read More

চার্চিল-এলভিস-ক্যাথেরিনের​ খাবার বিলাস

১৯৫৪ সালের কথা । বিমানে ভ্রমণ করছিলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী স্যার উইনস্টোন চার্চিল। নাস্তার জন্য তাঁকে মেনু পছন্দ করতে বললে তিনি পছন্দ করেছিলেন কাঁদাখোচা পাখির মাংস। দিনের প্রথম খাবারটা তিনি শুরু করতেন নিজের পছন্দের মেনু দিয়ে। কয়েক বছর আগে তার নিজের লেখা খাবারের মেনু নিলামে ওঠে। আর তা দেখে বোঝা যায়, চার্চিল কতটা ভোজনরসিক ছিলেন। কাঁদাখোচা পাখির মাংস ছাড়াও দুটো প্লেটে সাজিয়ে দেয়া হতো তার পছন্দের খাবার। নাস্তার প্রথম ধাপে থাকত ডিমপোজ, টোস্ট , মাখন জ্যাম আর মাংস । দ্বিতীয় দফায় থাকত আঙুর, এক বাটি মিষ্টি, হুইস্কি সোডা আর প্রিয় সিগারেট।…

Read More

হাসতে মানা

কঠিন ঝগড়ার পর স্ত্রী মুখ গোমড়া করে বসে আছে দেখে বৈরাগি ভাই তার স্ত্রীকে বলল, ‘মানুষ তাকেই থাপ্প​ড় মারতে পারে, যাকে কি-না প্রচণ্ড ভালোবাসে।’ এ কথা শুনেই বৈরাগি ভাইয়ের স্ত্রী বৈরাগি ভাইয়ের গালে কষে দুই থাপ্প​ড় মেরে বলল, ‘তুমি কি ভাবছ যে আমি তোমাকে ভালোবাসি না! দেখলে এবার, আমি তোমাকে দ্বিগুণ ভালোবাসি।’ বৈরাগি ভাই আর তার স্ত্রী আদালতে গেছেন তালাক নিতে। কিন্তু বৈরাগি ভাইয়ের স্ত্রী তালাক নিতে বা দিতে নারাজ। আদালতে হঠাৎ করেই বেশ কান্নাকাটি শুরু করলেন তিনি। বিচারক ভদ্রমহিলাকে জিজ্ঞেস করলেন, ‘আপনি কাঁদছেন কেন? তালাক হলে তো আপনার স্বামী…

Read More