আমার আগামি আমার সন্তান

amar agami amar shontan afroza aditi

সামান্য কারণে মারমুখী হয়ে উঠছে শিশুরা। বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দিতে দিতে, একসঙ্গে খেলতে খেলতে ক্ষিপ্ত হয়ে উঠতে দেখা যাচ্ছে শিশুদের। মা-বাবা-অভিভাবক-শিক্ষক কারও কথা শুনতে চাইছে না। বেশিরভাগ সময় নিজের মধ্যে ডুবে থাকছে নিজে। রাত জেগে কম্পিউটার কিংবা মোবাইল ব্রাউজ করছে। লেখাপড়া করছে না হয়তো, করছে না হোম-ওয়ার্ক; এই অবস্থায় বেশিরভাগ সময় বকাবকি করা হয় শিশুকে। কখনও কখনও নানা রকম শাস্তিও দেওয়া হয়। মাঝেমধ্যে খবরের কাগজে দেখা যায় শ্রেণিকক্ষে শিশুকে নির্যাতন করেছে তার শিক্ষক । এই নির্যাতন যে সে নির্যাতন নয় একেবারে শয্যাশায়ী, কখনও হাসপাতাল কখনও বা সে রক্তাক্ত ভীতসন্ত্রস্ত। শিশুকে…

Read More