মুকুটহীন সম্রাট ‍শিল্পি এস এম সুলতান / লেখক লেঃ কর্ণেল সৈয়দ হাসান ইকবাল (অব.)

নড়াইলের গৌরব বিশ্ববরেণ্য চিত্রশিল্পী এস এম সুলতানের জন্ম ১০ আগষ্ট ১৯২৩ নড়াইল জেলার সদর উপজেলার মাছিমদিয়া গ্রামের এক কৃষক পরিবারে। তাঁর ডাকনাম  লাল মিয়া। ছোটবেলায় সকলে তাকে লাল মিয়া বলেই ডাকতো। শিল্পি জীবনের মূল সূর-ছন্দ খুঁজে পেয়েছিলেন বাংলার গ্রামীণ জনপদের মাটি ও মানুষ তথা কৃষক, ‍কৃষিকাজ ও প্রকৃতির মধ্যে। আবহমান বাংলার সেই ইতিহাস-ঐতিহ্য, বিপ্লব-সংগ্রাম এবং বিভিন্ন প্রতিকুলতার মধ্যেও টিকে থাকার ইতিহাস তাঁর শিল্পকর্মকে সবচেয়ে বেশী প্রভাবিত করেছে। শিল্পির চিত্রে গ্রামীণ জীবনের পরিপূর্ণতা, প্রাণ প্রাচুর্যেরে পাশাপাশি শ্রেণী দ্বন্দ্ব ও গ্রামীণ অর্থনীতির রূপ অনেকটাই ফুটে উঠেছে। ফুটিয়ে তোলা হয়েছে বাংলাদেশের গ্রামীণ প্রকৃতিকে…

Read More

কি আমার পরিচয়/ ফিরোজ শ্রাবন

কি আমার পরিচয়, ঠিকানা কি জানিনা, এ জীবন আমি তো মানি না। ২০০৩ সালে একটি মাদক নিরাময় কেন্দ্রের হয়ে মাদকবিরোধী  প্রচারণায় অংশগ্রহণ করেছিলাম। আমাদের কাজ ছিল গানে গানে মানুষের কাছে মাদকের ক্ষতিকর দিকগুলো তুলে ধরা আর মানুষকে মাদকের খারাপ দিকগুলো সর্ম্পকে সচেতন করা। আামদের সাথে একজন গীতিকার ছিলেন । তিনি বিভিন্ন্ লোকজ গানের সুরে কথা বসিয়ে মাদক নিয়ে গান বানাতেন আর আমরা ৪/৫ জন শিল্পি মিলে গাইতাম । আমি অসংখ্য গান  গেয়েছি ওই প্রোগ্রামে আমার মনে হয় বিশ্বরেকর্ড করে ফেলেছিলাম। কেউ আমার খবর না নিলে রেকর্ড বইয়ে যাব কি করে?…

Read More

সেই সব নানা রঙ এর দিন গুলি ‍‌।।পর্ব ১২।।/ শামসুল আরেফিন খান

জুডাসের  চুমু ও বিভীষণ যুগে যুগে বিষাক্ত কেউটে   সাপের নিবিড় চুমু মানে নির্ঘাৎ মরণ। বিশ্বাসঘাতক জুডাসের  চুম্বন ছিল তার চাইতেও ভয়ানক এবং ঘৃণ্য।ধর্মাবতার যিশুর সব থেকে বিশ্বস্ত ও ঘনিষ্ঠ  ১২ শিষ্য এবং অনুসারীর অন্যতম সেই নরাধম জুডাস মানবজাতির কলঙ্ক । জেরুজালেমের রোমান  কর্তৃপক্ষ যিশুকে রাজদ্রোহী ঘোষণা করে মৃত্যু পরোয়ানা জারি করেছিল। চারিদিকে অনুচর পাঠিয়েছিল  তাঁকে গ্রেফতার করার জন্য। কিন্তু রোমানরা কেউ তাকে চিনতো না আর স্থানীয় আরবরা সবাই ছিল যিশুর ভক্ত । সেটাই ছিল তাদের  সবচেয়ে বড় সমস্যা।। সাতিল আরব ছিল তখন রোমানদের পদানত। রোম সম্রাট দাবি করতেন তিনিই ঈশ্বর।…

Read More

অপেক্ষার তিয়াস/ সুলতানা রিজিয়া

পৈষালি শীতের কাকডাকা ভোরে আজ আর জামিলার উঠতে ইচ্ছে করে না। রাতভর নেতানো কম্বলের জমাট ওমটুকু ধরে রাখতে গুটিসুটি মেরে পাশ ফেরে। বয়সী শরীরের বিষবেদনা কনকনে হিমঠান্ডায় উসকে ওঠে। এরমধ্যে বাসি এঁটোকাঁটা জড়ানো বাসনের গায়ে সাবান জলের ঠান্ডার কামড় বড়ই নিদারুণ। সকাল থেকে একমুহূর্তের অবসর নেই, দিনভর তাকে গনগনে আগুনের পাশেই থাকতে হয়। নদীর পাড় ঘেঁষে রেলস্টেশনের বারোযারী হোটেল। ট্রেনে কত মানুষ আসে,  যায়! কেউ হোটেলে এসে বসে, খায়, বিশ্রাম নিয়ে চলে যায়, কেউ ষ্টেশনে নেমেই আপন গন্তব্যে ফিরে যায়। জামিলার কাজ হোটেলের ভাত তরকারী রান্না করা আর সকালের এঁটো…

Read More

উন্নয়নের পৃথিবীতে পরিবেশ বিপর্যয়/ আইয়ুব হোসেন

সাম্প্রতিক বিশ্বে আহার, বাসস্থান, চিকিৎসাসহ বিভিন্ন সঙ্কট ক্রমশঃ ঘনীভূত। বৃহৎ, পরাশক্তি ও বাজার অর্থনীতির কারণে আসন্ন সভ্যতার ভয়াবহ সংকটের ঘনঘটা আকাশে বাতাসে। ক্রমবর্ধিত জনসংখ্যার বিস্ফোরণে তাবৎ বিশ্ববাসী ভীত। এশিয়ার এই দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের জন্য আশংকার খবর হলো- পৃথিবীর সবচাইতে ঘনবসতিপূর্ণ অঞ্চল হচ্ছে দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া। চলতি শতাব্দীর শেষে গিয়ে এ অঞ্চলের লোকসংখ্যা আরও সোয়া’শ কোটি বৃদ্ধি পেয়েছে। পৃথিবীতে যে দু’শ কোটি লোক বাড়বে তার ৬০% বাড়বে এই স্বল্প পরিসরের এলাকাতেই। তখন পরিবেশের প্রাকৃতিক ভারসাম্য হবে  তীব্রভাবে বিপর্যস্ত। বর্তমান পৃথিবীর ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার প্রয়োজনীয় বিভিন্ন চাহিদার জন্য বৃহৎ শক্তিগুলো বা কিছু ধনশালী…

Read More

বিশু চোর-২য় পর্ব/ শরীফ শেখ

বিশু চোর

কালামদের গ্রামের নাম বিন্নাপুর। গ্রামটি যমুনা নদী থেকে বেশ দূরেই। নদী অবশ্য প্রতি বছর ধীরে ধীরে ওদের গ্রামের দিকে এগিয়ে আসছে। ইতোমধ্যে নিশ্চিন্তপুর গ্রামের পূর্ব পাড়ার দুটি বাড়ি সরাতে হয়েছে। বয়ড়াবাড়ি গ্রামের মল্লিকপাড়া নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। বিন্নাপুর গ্রামের অধিবাসীরা মোটামুটি নিশ্চিত যে, ওদের গ্রাম ধরতে দেরী আছে। ওদের পুবে কাঞ্চনপুর গ্রাম পুরো ভেঙ্গে খাড়া হালট পেরিয়ে নদী এলে, তবেই বিন্নাপুর গ্রাম ধরবে। বিন্নাপুর গ্রামটি আশেপাশের অনেক গ্রাম থেকে একটু ভিন্ন। অন্যান্য গ্রামগুলো ছোট বড় মাঝারী আকারের একাধিক পাড়া নিয়ে গঠিত বেশ বড় বড় গ্রাম। কিন্তু বিন্নাপুর গ্রামটি পূর্ব–পশ্চিম…

Read More

আমিনুল ইসলামের কবিতায় অর্থনীতির অনুষঙ্গ/ মোঃ রফিকুল ইসলাম

মানবজীবনের অর্থনৈতিক কার্যাবলী নিয়ে যে শাস্ত্র আলোচনা করে– এক কথায় তাই হলো অর্থনীতি। আর আজকের আধুনিক সমাজে মানুষের প্রত্যেকটি কাজই কোন না কোন ভাবে অর্থনীতির সাথে জড়িত। অসীম অভাব ও সীমাবদ্ধ সম্পদের এই পৃথিবীতে মানুষ তার অর্থনৈতিক সমস্যা সমাধানের জন্য প্রতিনিয়ত যে কাজগুলো করে যাচ্ছে তাহলো– উৎপাদন, বন্টন, বিনিময় ও ভোগ। পৃথিবীর সব দেশের অর্থনীতিতে অর্থনৈতিক সমস্যা সমাধানের এই চারটি স্তর বা প্রক্রিয়া বিদ্যমান থাকলেও, ঐ সমস্ত দেশের রাজনৈতিক ও আর্থ–সামাজিক কাঠামোর উপর ভিত্তি করে এগুলোর পদ্ধতিগত পার্থক্য নির্ণীত হয়। তাই, একটি পুঁজিবাদী দেশ, সমাজতান্ত্রিক দেশ ও মিশ্র অর্থনীতির দেশের…

Read More

বড্ড ভালোবাসি পাগলি তোকে / পল্লভী খান

বাসর ঘরে ঢুকতেই বউ আমাকে সালাম দিলো। আমিও সালামের উত্তর নিয়ে পাশে গিয়ে বসলাম।পাশে বসতেই বৌ আমাকে বলল…. —-ঘড়িতে তাকিঁয়ে দেখুন তো কয়টা বাজে?? বাসররাতে বৌয়ের এমন সাহসী প্রশ্নে কিছুটা বিচলিত হলাম।তখন ঘড়িতে তাকিঁয়ে দেখি রাত ১২.৩০মিঃ ।আমি বৌয়ের পাশে বসে আস্তে করে বললাম….. —-শোনো আমার এখন বিয়ে করার কোন ইচ্ছেই ছিলো না ।আমার বাবা-মায়ের পছন্দেই তোমাকে বিয়ে করেছি। তবে আমার কারো সাথে কোন সম্পর্ক ও নেই।কিন্তু আমি বিয়ের জন্য মানসিক ভাবে প্রস্তুত ছিলাম না।তাই আমি এখন চাইলেও এত সহজে তোমাকে বউ হিসেবে মানতে বা বৌয়ের অধিকার দিতে পারবো না।…

Read More

খামচি/ সাদিয়া ফয়জুন

বসন্তের প্রথম সকাল। শীত শীত আমেজ। সকাল বেলায় বিছানা ছাড়তে একদমই ইচ্ছে হচ্ছেনা। অভ্যেসবশে মুঠোফোনটা হাতে নেয় বেলি।… আটটা মিসকল। প্রথম তিনটা রাতেই দেখেছে। প্রথম ফোনটা আসার পর রিসিভ না করে সাইলেন্ট মুডে রেখেছিল।  সকালে বিউটি আবার ফোন দিচ্ছে। অলসভাবে শুয়েই বিরক্তিমাখা ভঙ্গিতে ফোনটা উপুড় করে রেখে বেলি আবার পাশ ফেরে। বিউটিকে এখন মোটেই সহ্য করতে পারেনা বেলি। প্রথম পরিচয় এক বান্ধবীর বাসায়। অন্য একটি কলেজে পড়ে। তারপর বেলিদের ব্যাচে প্রাইভেট পড়তে শুরু করে। তারপর থেকেই বিউটির সাথে বেলি পরিচিত হতে থাকে। তৃতীয়দিনে প্রাইভেটে এসে বিউটি  বসে পিছনের বেঞ্চে। সেদিন…

Read More

ঈদের আনন্দ/ফিরোজ শ্রাবন

প্রতিটি ঈদ আসে আমাদের জীবনের খুশির বার্তা নিয়ে আর চলে যায় আবেশ ছড়িয়ে। দূর দুরান্তের মানুষগুলো ফিরে আসে মাটির টানে বাবা মায়ের সাথে ঈদ করতে । শিকড়ের প্রতি মানুষের এই অমোঘ নিয়ম যেন হারিয়ে না যায় তার নিরন্তন চেষ্টায় সবাই ব্যাকুল। আবার কেউ কেউ ঈদের ছুটিতে ঘুরে বেড়ায় দেশ থেকে দেশান্তরে। মনে হয় ঈদের এই খুশির প্রতিটি মহূর্ত কেউ হাতছাড়া করতে চায় না । আবার কেউবা এই সুযোগে বিয়ে শাদির কাজটাও সেরে ফেলেন । কর্মব্যস্ততায় আসলে বিয়ে করার মত সময়ও যেন তারা পায় না, বিশেষ করে যারা চাকুরীজিবিরা। আমাদের দৈনন্দিন…

Read More